ঢাকা, রোববার   ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ||  মাঘ ২২ ১৪২৯

হেক্সা জয়ের মিশনে ব্রাজিলের `নিউক্লিয়াস` নেইমার

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:৩৪, ৬ ডিসেম্বর ২০২২  

হেক্সা জয়ের মিশনে ব্রাজিলের `নিউক্লিয়াস` নেইমার

হেক্সা জয়ের মিশনে ব্রাজিলের `নিউক্লিয়াস` নেইমার

কাতার বিশ্বকাপে ব্রাজিলের যে দলটা এসেছে, এই দলে তারকার ছড়াছড়ি। ইউরোপের শীর্ষ ক্লাবগুলোর হয়ে মাঠ মাতানো সব তারকাকে ঘিরে দল সাজিয়েছেন কোচ তিতে। তারপরও দলের সেরা তারকা তাদের কেউ না। পুরো দলের মাঝে বারুদ ছড়িয়ে দেওয়া খেলোয়াড়টির নাম নেইমার জুনিয়র। 

নেইমারকেই কাতার বিশ্বকাপে ব্রাজিল দলের নিউক্লিয়াস ধরা যায়। আসরের ম্যাচগুলোর দিকে একবার দৃষ্টিপাত করলেই সেটা পরিস্কার দৃশ্যমান। বিশ্বকাপে ব্রাজিল ম্যাচ খেলেছে ৪টি, কিন্তু মন ভরানো ফুটবল খেলেছে কয় ম্যাচে? উত্তরটা হবে দুই ম্যাচে।

প্রথম ম্যাচে সার্বিয়ার বিপক্ষে আর দ্বিতীয় রাউন্ডে দক্ষিণ কোরিয়ার বিপক্ষে। মাঝের ১০ দিনে দুটি ম্যাচ, মানে সুইজারল্যান্ড আর ক্যামেরুনের বিপক্ষে ব্রাজিল এক ম্যাচে জিতেছে বটে। তবে চিরচেনা সেই ছন্দটা খুঁজে পাওয়া যায়নি। মন ভরেনি সাম্বার ছন্দে।

কেন মন ভরাতে পারেনি ব্রাজিলের খেলা? এমন প্রশ্নের একটাই উত্তর, নেইমারের অনুপস্থিতি। মাঝের ১০ দিনে নেইমার ছিলেন না, অ্যাঙ্কেলের চোট নিয়ে ছিলেন মাঠের বাইরে। তাতেই অচেনা ব্রাজিল। নেইমার ফিরতেই আবার চিরচেনা ছন্দে তিতের দল। 

স্ট্রাইকারের পেছনে ‘ত্রেকোয়ার্তিস্তা’ বা নম্বর টেন রোলে তাকে খেলান কোচ তিতে, যেখান থেকে নেইমার ব্রাজিলের আক্রমণের সূচনা গড়ে দেন, কখনো সখনো শেষও করেন। সেই নেইমারকেই যখন পাবে না, ব্রাজিলকে তখন কিছুটা রঙহীন লাগাটাই স্বাভাবিক।

কোরিয়ার বিপক্ষে নেইমারকে পেয়ে ছন্দে ফিরেছে ব্রাজিলও। শুরুর ৪৫ মিনিটে নেইমার-ভিনিসিয়ুসরা মুহুর্মুহু আক্রমণে ব্যতিব্যস্ত রাখছিলেন কোরিয়ান রক্ষণকে। আর নেইমার ফিরেই আসরে প্রথম গোলের পাশাপাশি জিতে নিয়েছেন ম্যাচসেরার পুরস্কারও।

বিশ্বকাপ শুরুর আগে ব্রাজিলের অধিনায়ক থিয়াগো সিলভা বলেছিলেন, এই বিশ্বকাপে নতুন এক নেইমারকেই পাবে ব্রাজিল। নেইমার শুধু নতুন হয়েই নয়, ধরা দিলেন দলের 'নিউক্লিয়াস' হয়ে। ষষ্ঠ বিশ্বকাপ জয়ের মিশনে এমন আগুনে নেইমারকেই তো চেয়েছিল ব্রাজিল!

নেইমারের এমন ফেরার দিনে ম্যাচশেষে ব্রাজিলের জয়ের ব্যবধানও দেখার মতো। স্টেডিয়াম ৯৭৪-এ হওয়া শেষ ম্যাচে দক্ষিণ কোরিয়াকে ৪-১ ব্যবধানে হারিয়েছে ব্রাজিল। এই জয়ে সেলেসাওরা নিশ্চিত করেছে কোয়ার্টার ফাইনাল। 

ম্যাচে প্রথম গোল করেছেন ভিনিসিয়াস জুনিয়র। পরে পেনাল্টি থেকে গোলের খাতায় নাম লেখান নেইমার নিজে। বাকি দুটি গোল করেন রিচার্লিসন ও লুকাস পাকোতা। আগামী ৯ ডিসেম্বর ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে কোয়ার্টার ফাইনালে খেলতে নামবে তারা।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়